বাউফলে নিখোঁজ কলেজ ছাত্রের গলিত লাশ উদ্ধার

বাউফল প্রতিনিধি: পটুয়াখালীর বাউফলে নিখোঁজ হওয়ার ১৭ দিন পরে হৃদয় কবিরাজ (২২) নামে এক কলেজ ছাত্রের গলিত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। হত্যাকান্ডে অংশ নেয়া এক ঘাতকের স্বিকারোক্তিতে ওই লাশ উদ্ধার কার্যক্রম পরিচালনা করে দাশপাড়া ইউনিয়নের খেজুরবাড়িয়া গ্রামের সীমান্তবর্তী বাউফল ইউনিয়নের অলিপুরা গ্রামের রাজা বাড়ি সংলগ্ন খালে ভাসমান অবস্থায় ওই কলেজ ছাত্রের লাশের সন্ধান পায় পুলিশ। পরে আজ শুক্রবার সকালে বাউফল থানা পুলিশ ও পটুয়াখালী থেকে আসা সিআইডি’র একটি দল ওই লাশ উদ্ধার করেন।

নিহত হৃদয়ের পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত ১১ জুলাই বিকালে দাশপাড়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের হরেন্দ্র কবিরাজের ছেলে হৃদয় কবিরাজ নিজ বাসা থেকে বের হয়। এরপরে ওই দিন রাত ১১ টা পর্যন্ত হৃদয় বাসায় না ফেরায় পরিবারের লোকজন খোঁজাখুজি শুরু করেন।

কোথাও সন্ধান না পেয়ে ১৩ জুলাই নিখোঁজ হৃদয়ের বাবা হরেন্দ্র কবিরাজ বাউফল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন। ওই সাধারণ ডায়েরীর পরে বাউফল থানা পুলিশ বিভিন্ন জায়গায় তল্লাশি চালায়। এক পর্যায়ে হৃদয়ের বন্ধু দাশপাড়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের মোঃ হাশেম খানের ছেলে মোঃ জাফর খানকে (২৫) জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বুধবার আটক করে পুলিশ।

ঘাতক জাফরের স্বিকারোক্তিতে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে প্রথমে নিহতের মোটরসাইকেল উদ্ধার করে। পরে জাফরের দেওয়া তথ্যানুযায়ী দাশপাড়া ইউনিয়নের খেজুরবাড়িয়া গ্রামের ছহির উদ্দিন বিশ্বাস বাড়ীর সামনের খালে ভাসমান অবস্থায় হৃদয়ের গলিত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত হৃদয় নবারুন সার্ভে ও পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের সপ্তম সেমিষ্টারের ছাত্র ছিলেন।

শুক্রবার দুপুরে লাশ ময়না তদন্তের জন্য পটুয়াখালী পাঠানো হয়েছে।

পটুয়াখালী জেলার এডিশনাল এসপি (এডমিন) মঈনুল হাসান বলেন,“ঘাতকের স্বিকারোক্তিতে নিহতের মটর সাইকেল ও লাশ উদ্বার করা

হয়েছে। হত্যাকান্ডের সাথে আর কেউ জড়িত আছে কিনা খতিয়ে দেখা
হচ্ছে।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares
Verified by MonsterInsights