বাউফলে তিন খুনের ঘটনায় মানববন্ধন

পিয়াল হাসান,বাউফল(পটুয়াখালী) প্রতিনিধিঃ

বাউফলে যুবলীগের তিন কর্মী খুনের ঘটনায় খুনিদের দ্রুত গ্রেপ্তার ও ফাঁসির দাবি জানিয়ে বাউফল উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের উদ্যোগে মানববন্ধন করা হয়েছে। গতকাল বৃহষ্পতিবার বেলা ১১ টায় বাউফল থানা সংলগ্ন ডাকবাংলোর মোরে ওই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে প্রায় সহাস্রাধিক নেতাকর্মী অংশ নেয়।

কেশবপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি কেশবপুর ডিগ্রী কলেজর অধ্যক্ষ মো. সালেহ উদ্দিন পিকুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি শাহজাহান সিরাজ, সাধারন সম্পাদক এস.এম. ফয়সাল আহমেদ মনির হোসেন মোল্লা, সাংগঠনিক সম্পাদক খলিলুর রহমান, কেশবপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক মনিরুল ইসলাম টিটু এবং খুন হওয়া এক সন্তানের মা মোসা.ফাতিমা বেগম প্রমূখ।

উল্লেখ্য, গত ২৪ মে দুপুরে বাউফল থানার সামনে ডাক বাংলোর মোরে পৌর আওয়ামী লীগের একটি তোরণ নির্মাণ করাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষ বাউফল পৌর সভার মেয়র জিয়াউল হক জুয়েল সমর্থকদের হাতে খুন হয় উপজেলা যুবলীগের কর্মী তাপস দাস।

অপরদিকে গত ৪ আগস্ট সন্ধা সাতটার দিকে কেশবপুর বাজারে আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের কোন্দলে কেশবপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সহসভাপতি রকিব উদ্দিন রুমন ও যুবলীগ কর্মী ইশাত তালুকদার খুন হয়।

তাপস হত্যাকান্ডে বাউফল পৌরসভার মেয়রকে প্রধান আসামি করে ৩৫ জনের বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা দায়ের করে তাপসের বড় ভাই পঙ্কজ দাস এবং রুমন ও ইশাত হত্যাকান্ডে কেশবপুর ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পপাদক মহিউদ্দিন লাভুকে প্রধান আসামি করে ৫৯ জনের বিরুদ্ধে রুমনের বড় ভাই মফিজ উদ্দিন মিন্টু একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। উক্ত তিন খুন মামলায়ই একাধিক আসামি উচ্চ আদালত থেকে জামিন নিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares