নাদিয়ার হিল্লা বিয়া!

বিনোদন ডেস্ক :

ইয়াকুব রাগের মাথায় তার স্ত্রী নাদিয়াকে তালাক দেন। পরক্ষণে বুঝতে পারেন এটি তার বড় ভুল হয়েছে। পরে তার স্ত্রীকে ফিরে পেতে মরিয়া হয়ে ওঠেন ইয়াকুব।

কিন্তু বাধা হয়ে দাঁড়ায় তার গ্রামের লোকজন। গ্রামের মাতব্বররা সিদ্ধান্ত দেন হিল্লা বিয়ে ছাড়া কোনো অবস্থাতেই স্ত্রীকে ফেরত পাবেন না ইয়াকুব। ঠিক হয় ইয়াকুবের দোকানের কর্মচারী বোকা কিচিমের সুমন ২০ হাজার টাকার বিনিময়ে নাদিয়াকে বিয়ে করে আবার তালাক দেবেন।

কিন্তু সুমন নাদিয়াকে বিয়ে করার পর তাকে তালাক দিতে অস্বীকৃতি জানান। ইয়াকুব নানা রকম ফন্দি ফিকির করেন সুমনের কাছ থেকে তার স্ত্রীকে ফিরিয়ে আনার। সুমন ‘নাছোড়বান্দা’ সবকিছু ছাড়তে রাজি হলেও নাদিয়াকে ছাড়তে নারাজ। শুরু হয় সুমন ও ইয়াকুবের মধ্যে নাদিয়াকে নিয়ে ‘লড়াই’। ঘটতে থাকে মজার সব ঘটনা।

এমন গল্প নিয়েই নির্মিত হয়েছে নাটক ‘হিল্লা বিয়ে’। টিপু আলম মিলনের গল্পে নাটকটি পরিচালনা করেছেন সরদার রোকন। নাটকে সুমন চরিত্রে অভিনয় করেছেন রাশেদ সীমান্ত, তানিয়া চরিত্রে নাদিয়া আহমেদ, ইয়াকুব চরিত্রে অলিউল হক রুমি।

বৈশাখী টিভিতে ঈদের দিন রাত ৮টা ১০ মিনিটে প্রচার হবে নাটকটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares