নাটোরে মাছ ব্যবসায়ীর উপর দূর্বৃত্তের হামলা

নাটোর প্রতিনিধি:

নাটোরের বাগাতিপাড়ায় ব্যবসায়ী রাজিব হোসেন সুজনকে (২৬) মারপিট করে টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগ উঠেছে । মারাত্মক জখম অবস্থায় আহত সুজন ও তার বন্ধু বর্তমানে নাটোর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। 

লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার রহিমানপুর গ্রামের সাজেদুর রহমানের ছেলে রাজিব হোসেন সুজন শনিবার রাত নয়টার দিকে শ্বশুরবাড়ি ওয়ালিয়া থেকে বন্ধুর সঙ্গে মোটর বাইকে  নিজ বাড়িতে ফিরছিলেন। রহিমানপুর ব্রিজ এলাকায় পৌঁছলে আট দশ  জনের একটি দুর্বৃত্তের দল তাদের উপরে হামলা করে। এতে করে মারাত্মক আহত হয় সুজন ও তার বন্ধু। পরে তাদেরকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে নাটোর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। 

এ ঘটনায় বাদী হয়ে বাগাতিপাড়া মডেল থানায় এজাহার করেছেন সুজনের বাবা সাজেদুর রহমান। তার দাবি, তার ছেলে শশুর বাড়ি থেকে এক লক্ষ টাকা নিয়ে বাড়িতে ফেরার পথে দুর্বৃত্তরা সশস্ত্র হামলা করে। এ সময় সুজনের কাছে থাকা এক লক্ষ টাকা ছিনিয়ে নেয় তারা।  নির্মমভাবে হত্যার উদ্দেশ্যে আক্রমণ করেছে বলে দাবি করেন তিনি। মাথায় আঘাত, মাড়ি ভেঙে যাওয়া ও পায়ের রগ কাটা সহ শরীরের বিভিন্ন জায়গায় তারা ক্ষতবিক্ষত করে দেয়। বর্তমানে সুজন মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে। ওই হামলাকারীদের শনাক্ত করে দ্রুত আইনের আওতায় আনার দাবি জানান তিনি।

এ ঘটনায় দু’জন নাটোর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে এমন তথ্য নিশ্চিত করেছেন নাটোর সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার  ডা. মুনজুর রহমান। দু’জনের মধ্যে সুজন নামের রোগীর উন্নত চিকিৎসা প্রয়োজন এমনটি জানিয়েছেন নাটোর সদর হাসপাতালে ডেন্টাল সার্জন মো: দাউদ আলী। চিকিৎসক বলেন, সুজন নামের ওই রোগীর মাড়ি ভেঙে গেছে। ওরাল সার্জন দিয়ে তার অপারেশন করাতে হবে। তাই তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো প্রয়োজন পরামর্শ দিয়েছেন তিনি। 

এ ব্যাপারে বাগাতিপাড়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুল মতিন মুঠোফোনে জানান,  এ ধরনের একটি অভিযোগ আমরা পেয়েছি।  বর্তমানে করোনা ভাইরাস সংক্রান্ত  নানাবিধ কাজ নিয়ে  পুলিশ ব্যস্ত থাকলেও আমি একজন অফিসার কে তদন্তের দায়িত্ব দিয়েছি। ঘটনার সত্যতা পেলে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানান তিনি। 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares