ইতালিতে নারীকে একসঙ্গে দেয়া হয়েছে ১০ ডোজ টিকা!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :

ইতালিতে ২৩ বছর বয়সী এক নারীকে করোনার ফাইজার বায়োএনটেকের ছয় ডোজ টিকা দেওয়া হয়েছে। ভুলবশত দেওয়া ওই টিকায় কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া তৈরি হয় কি না সে আশঙ্কা থেকে তাকে ২৪ ঘণ্টা পর্যবেক্ষণে রাখার পর ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়, ইতালির কেন্দ্রীয় তুসকানি অঞ্চলের নোয়া হাসপাতালের এক নার্স ওই নারীর বাহুতে টিকার এক ডোজ পুশ করার পরিবর্তে শিশির পুরোটাই দিয়ে দেন, যা ছয় ডোজের সমপরিমাণ।

টিকা দেওয়ার পরপরই নার্স বিষয়টি অনুধাবন করতে পারেন এবং দ্রুতই তা রোগী এবং উপস্থিত চিকিৎসককে অবহিত করেন। এ অবস্থায় আশঙ্কা থেকে ওই রোগীকে ২৪ ঘণ্টা পর্যবেক্ষণে রাখা হয়।

নোয়া হাসপাতালের সংক্রমক রোগ বিভাগের পরিচালক ড. অ্যান্তোনেল্লা ভিসেন্তি আন্তর্জাতিক একটি সংবাদমাধ্যমকে বলেন, ভুলবশত বেশি মাত্রায় টিকা দেওয়া ওই নারীর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি। তার জ্বর আসেনি কিংবা কোনো ধরনের ব্যথা অনুভব হয়নি।

তবে ছাড়পত্র দেওয়া হলেও ওই নারীর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সার্বক্ষণিক পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন হাসপাতালের এক মুখপাত্র। তার শরীর থেকে নিয়মিত রক্ত নেওয়া হচ্ছে এবং টিকার দ্বিতীয় ডোজের প্রয়োজন আছে কি না, সে বিষয়টি নিয়েও আলোচনা চলছে।

ঘটনাটি ইতালির ওষুধ নিয়ন্ত্রণ বিভাগকে জানানো হয়েছে এবং হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ঘটনাটির অনুসন্ধান শুরু করেছে। আর বিষয়টিকে ‘মানবীয় ভুল’ বলে আখ্যায়িত করেছেন ড. থমাস্সো বিলান্ডি।

এর আগে যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রেলিয়া, জার্মানি এবং ইসরায়েলে ভুলবশত করোনা রোগীদের ফাইজার বায়োএনটেকের টিকার ওভারডোজ প্রয়োগের খবর জানানো হয়।
খবর ডেইলি মেইল

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares