আব্রাহাম লিংকন’র জীবনী

দৈনিক সকালের ডাক

ইংরেজি: Abraham Lincoln আব্রাহাম লিংকন) (জন্ম: ১২ ফেব্রুয়ারি, ১৮০৯ – মৃত্যু: ১৫ এপ্রিল, ১৮৬৫) মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ১৬তম রাষ্ট্রপতি। তিনি রিপাবলিকান পার্টির প্রথম রাষ্ট্রপতি, এবং ১৮৬১ হতে ১৮৬৫ খ্রীস্টাব্দ পর্যন্ত ক্ষমতায় অধিষ্ঠিত ছিলেন। দাস প্রথার চরম বিরোধী লিংকন ১৮৬০ সালে রিপাবলিকান পার্টির প্রার্থী হিসাবে রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হন।

১৮৬৩ সালে তিনি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দাস প্রথার অবসান ঘটান এবং মুক্তি ঘোষণা (Emancipation Proclamation) এর মাধ্যমে দাসদের মুক্ত করে দেন। দাস প্রথাকে কেন্দ্র করে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের গৃহযুদ্ধের সময় তিনি উত্তরাঞ্চলীয় ইউনিয়ন বাহিনীর নেতৃত্ব দেন, এবং দক্ষিণের কনফেডারেট জোটকে পরাজিত করেন। জন উইল্ক্স বুথ নামক আততায়ীর হাতে তিনি ১৮৬৫ খ্রীস্টাব্দের ১৫ এপ্রিল গুলিবিদ্ধ ও নিহত হন। আব্রাহাম লিংকন (১২ ফেব্রুয়ারী,১৮০৯ – এপ্রিল ১৫, ১৮৬৫) ছিলেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ১৬ তম প্রেসিডেন্ট। ১৮৬১ সালের মার্চে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে ১৫ এপ্রিল ১৮৬৫ সাল পর্যন্ত তিনি সফলভাবে দায়িত্ব পালন করেন। তার অসাধারণ নেতৃত্ব গুণ,বাগ্মিতা, দূরদর্শীতার বলে তিনি আমেরিকান গৃহযুদ্ধ কালীন সময়েও সফলভাবে সকল প্রতিবন্ধকতাকে জয় করতে সক্ষম হোন।

কেন্টাকিতে জন্মগ্রহণ করা লিংকন গরীব আমেরিকান ফ্রন্টিয়ারে বেড়ে উঠেন। স্বশিক্ষিত হয়ে তিনি ইলিনয়ের লইয়ার হন। হুইগ পার্টির নেতা হিসেবে তিনি আট বছর রাষ্ট্রের নীতিনির্ধারনের কাজ করেন এবং পুনরায় তার আইনী কাজে ফিরে যাবার পূর্বে দুই বছর কংগ্রেসে কাজ করেন। ডেমক্রেটিকরা যখন প্রেইরি ল্যান্ডে দাসপ্রথার চালু করে লিংকন রাগান্বিত হয়ে পুনরায় ১৮৫৪ সালে রাজনীতিতে প্রবেশ করেন। নিউ রিপাবলিকান পার্টির নেতা হয়ে উঠেন। তিনি জাতীয়ভাবে নজর কাড়তে সক্ষম হন ১৮৫৮ সালে ডেমোক্রেট নেতা স্টিফেন এ. ডগলাসের সাথে বির্তকে জড়িয়ে। সেবার তিনি হেরে যান। পরে পশ্চিম থেকে প্রার্থীতা নিয়ে ১৮৬০ সালে প্রেসিডেন্ট প্রার্থীতা নেন। উত্তরকে হারিয়ে তিনি নির্বাচিত হন।

তিনি জিতে যাবার ফলে দক্ষিনের দাস প্রথার পক্ষ শক্তি বুঝতে পারে যে উত্তরাঞ্চল দক্ষিণের সাংবিধানিক অধিকারকে অস্বীকার করছে যাতে দাস প্রথা চলতে থাকে। তারা ইউনিয়ন থেকে বিচ্ছিন্ন হবার প্রক্রিয়া শুরু করে যাতে একটি স্বাধীন দেশ গড়তে পারে। ন্যাশনালিজম উত্তরের ক্ষমতাবান শক্তি এবং এটি এই বিচ্ছিন্নতাকে মেনে নেয়নি। এবং স্বাধীনতা বজায় রাতে নব গঠিত কনফেডারে স্টেটস অব আমেরিকা দক্ষিনের ফোর্ট সুমটারে আক্রমন চালায়। লিংকন স্বেচ্ছাসেবী এবং মিলিশিয়া গঠন করে এবং ইউনিয়ন ধরে রাখতে বিদ্রোহীদের দমন করতে আহ্বান জানায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares